আলাপ কলিং অ্যাপ | কথা বলুন মাত্র ৩০ পয়সায়

0 ১৯৪
‘আলাপ’ (Alaap) নামের কলিং আনলো সরকারি টেলিযোগাযোগ সংস্থা বাংলাদেশ টেলিকমিউনিকেশন কোম্পানি লিমিটেড (বিটিসিএল)। বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী ও ৫০তম স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে ২৬ মার্চ ২০২১ তারিখে কথা বলার দেশি অ্যাপ-টি গুগল প্লে স্টোরে অবমুক্ত করা হয়। প্রচলিত ব্রিলিয়ান্ট অ্যাপস কিংবা আম্বার আইটি আইপি ফোন অ্যাপ কিংবা ফেসবুক মেসেঞ্জার, হোয়াটসঅ্যাপ, ভাইবার, ইমোর মতো অ্যাপভিত্তিক বিনামূল্যে কলিং সেবা দেওয়া প্রতিষ্ঠানের দিকে মোবাইল ব্যবহারকরীগণ ঝুুঁকেছে। এসব ব্যবহারকারীদের আকৃষ্ট করতে এবং তাদের সাথে পাল্লা দিতে বিটিসিএল যুক্ত করলো আলাপ।

কথা বলা যাবে ৩০ পয়সা প্রতি মিনিট

মোবাইল কোম্পানিগুলোর গলাকাটা রেটে মোবাইল ফোন ব্যবহারকরীদের জন্য বিটিসিল আলাপ কলিং অ্যাপ যেন আশির্বাদ। এই অ্যাপসটি ব্যবহার করে একজন গ্রাহক যেকোনো মোবাইল কিংবা ল্যান্ডফোনে কথা বলতে পারবেন মাত্র ত্রিশ পয়সায় যা ভ্যাট ও চার্জসহ ৩৪ পয়সায় প্রতি মিনিট খরচ হবে। এছাড়া, রয়েছে ফ্রি কলিং সুবিধা যা শুধুমাত্র আইপি নম্বরে কথা বলার ক্ষেত্রে প্রযোজ্য।

কি সুযোগ সুবিধা থাকছে অ্যাপটিতে

বাজারে থাকা অন্যান্য আইপি ফোন সার্ভিস বা সেবা দেওয়া প্রতিষ্ঠানের সাথে টেক্কা দিতে আলাপ তার সকল নতুন গ্রাহকে দিচ্ছে ১৫ মিনিট যেকোনো নম্বরে কথা বলার সুযোগ, যার মেয়াদ হবে নিবন্ধনের তারিখ হতে একমাস। তবে সেক্ষেত্রে গ্রাহকে অবশ্যই তার আইডি ভেরিফাইড করতে হবে।

যেভাবে নিবন্ধন করবেন

প্রথমেই গুগলের প্লে স্টোর হতে অ্যাপটি আপনার এন্ড্রয়েড অথবা অ্যাপল স্টোর হতে আইফোনে নামিয়ে নিতে হবে। তারপর অ্যাপটি খুলে মোবাইল নম্বর দিয়ে নিবন্ধন করতে হবে। একটু ছয় ডিজিটের ওটিপি আসবে মোবাইলের মেসেজের মাধ্যমে। ওটিপি-টি অ্যাপ ভেরিফাই করতে ইনপুট করলেই নিবন্ধন প্রক্রিয়ার প্রথম ধাপ সম্পন্ন হবে। এবার আইডি ভেরিফাই করতে আপনার এনআইডি বা স্মার্ট কার্ডটির সামনের ও পেছনে অংশ ক্যামেরার সামনে ধরগে হবে এবং ছবি তুলতে হবে। অ্যাপটি কিছু সময় নিয়ে আপনার আইডির ছবির তথ্য সার্ভারের সাথে সমন্বয় করত একাউন্টটি ভেরিফাই করে দেবে। আইডি ভেরিফাই হলেই আপনার একাউন্টে বোনাস মিনিট পেয়ে যাবেন। এখন আপনার নামের পাশে একটি সবুজ বোতাম দেখতে পাবেন।

আলাপ রেফারেল বোনাস

আলাপ কলিং অ্যােড ব্যবহারকারীগণ তাদের বন্ধু ও স্বজনদের আমন্ত্রণ জানানো এবং নিবন্ধন করলে পাবেন রেফারেল বোনাস।

আলাপ app download

গত ২৬ মার্চ ২০২১ তারিখে অ্যাপটি গুগলের প্লে স্টোরে অবমুক্ত করার ফলে এখন আর ডাউনলোড আলাপ কলিং অ্যাপ ডাউনলোড সংক্রান্ত কোনে জটিলতা থাকছে না। এর পূর্বে এপসটি আলাপের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট Alaap হতে জিপ হিসেবে ডাউনলোড করত হ্যান্ডসেটে ইনস্টলেশন করতে হতো। যদিও তা ছিল পরীক্ষামূলক সংস্করণ ও বেটা ভার্সন। ছিল না কোনো রিচার্জ কিংবা কলিল অপশন।

আলাপ বিটিসিএল কলিং অ্যাপ রিচার্জ করবেন যেভাবে

আলাপ বিটিসিএল কলিং অ্যাপ ডাউনলোড, ইনস্টলেশন, রেজিস্ট্রেশন প্রক্রিয়া সম্পন্ন পরবর্তী যে বিষয়টি দরকার তাহলো কথা বলার পূর্বেই রিচার্জ করা। বর্তমানে অ্যপটি রিচার্জ করা যাবে ভিসা বা মাষ্টার কার্ড ব্যবহর করে, অনলাইন ব্যাংকিং ও ডেবিট কার্ড দিয়ে এবং মোবাইল ব্যাংকিং নগদ ও বিকাশ ব্যবহার করে।

রিচার্জ করার জন্য অ্যাপটির উপরে ডানপাশের সেটিংস অপশনে ক্লিক করে রিচার্জ বাটনে প্রবেশ করতে হবে। তারপর কার্ড/নগদ/বিকাশ যেকোনো একটি নির্বাচন করে পরবর্তী ধাপে যেতে হবে। প্রবেশ করাতে হবে কার্ড কিংবা বিকাশ/নগদ নম্বরটি। কনফার্মেশন মেসেজ বা ওটিপি ও পিন দিয়ে নির্দিষ্ট অংকের টাকা রিচার্জ করা যাবে।

রেফারেল বোনাস পাবেন যেভাবে

রেফারেল করার জন্য অ্যাপটির উপরে ডানপাশের সেটিংস অপশনে (চার ডট) ক্লিক করলে নিচের ডানদিকে রেফারেল নামক একটি বাটন পাওয়া যাবে। এই রেফারেল বাটনটিতে ক্লিক করল বেশ কিছু প্লাটফর্ম (ফেসবুক, ইমো, ভাইবার, হোয়াটস অ্যাপে, মেসেঞ্জার, মেসেজ ইত্যাদি) আসবে। যেকোনো একটি নির্বাচন করে নির্দিষ্ট কন্টাক্টে মেসেজ পাঠিয়ে তাদের আমন্ত্রণ জানানো যাবে।

আপনার পাঠানো ইনভাইটেশন মেসেজর লিংকটি ক্লিক করে ডাউনলোড, ইনস্টলেশন, রেজিস্ট্রেশন প্রক্রিয়া সম্পন্ন পরবর্তী আইডি ভেরিফাই ও রিচার্জ করলেই শুধু রেফারেল বোনাস পাওয়ার যোগ্য হবেন।

পাঠানো যাবে এসএমএস

৩০ পয়সায় মোবাইল বা ল্যান্ডফোনে ও বিনামূল্যে আইপি ফোনে কল কারার পাশাপাশি পাঠাতে পরবেন এসএমএস। এরজন্য গ্রাহককে গুনতে হবে মেসজ প্রতি ৪০ পয়সা।

অন্যান্য যেসব সুবিধা দিচ্ছে আলাপ কলিং অ্যাপ

বাজারে থাকা প্রচলিত আইপি ফোন সার্ভিস প্রদানকারী প্রতিষ্ঠাগুলো সেসকল সুযোগ সুবিধা তাদের গ্রহকদের দিয়ে থাকেন বিটিসিএল তার পাশাপাশি আরও কিছু সুবিধা চালু করেছে।

প্রথমেই নম্বর নিয়ে কথা বলা যাক…

কিছু কিছু আইপি ফোনে গ্রাহক চাইলেই তাদের পছন্দের নম্বর নিতে পারে না। আর পছন্দের নম্বর নিতে দিতে হয় অতিরিক্ত টাকা। আলাপ কলিং অ্যাপে 09696 পরবর্তী ডিজিট বা সংখ্যাগুলো হবে সম্পূর্ণ আপনার নিবন্ধিত মোবাইল নম্বরের শেষের ডিজিট বা সংখ্যা দিয়ে।

রয়েছে কল রেকডিং ও কল ফরওয়ার্ডিং সুবিধা।

হ্যাঁ, আপনি চাইলে যেকোনো কল রেকর্ড করতে পারবেন। এছাড়া আপনি কল ফরওয়ার্ড করে জিএসএম সিম বা সাধারণ ফোনে আপনার কল ফরওয়ার্ড করে রাখতে পারবেন।

আলাপ বিটিসিএল কলিং অ্যাপ কল রেট

দেশের প্রথম সরকারি পৃষ্ঠপোষকতায় আসা কলিং অ্যাপ আলাপ দিচ্ছে সর্বনিম্ন কল রেট। এই অ্যাপ ব্যবহার করে দেশের সকল মোবাইল ও ল্যান্ডফোনে কথা বলতে খরচ হবে ৩০ পয়সা যার সাথে ১৫ শতাংশ ভ্যাট ও চার্জ যুক্ত হয়ে ৩৪.৫ পয়সায় ঠেকবে। অন্যদিকে সকল আইপি নম্বরে কথা বলা যাবে শূন্য পয়সায়। তবে, কল কারার ক্ষেত্রে গ্রহকের মোবাইলে ইন্টারনেট সংযুক্ত থাকতে হবে।

আলাপ বিটিসিএল কলিং অ্যাপ কল রেট

উল্লেখ্য, ৪ এপ্রিল ২০২১ অ্যাপটি উদ্ভোদন করবেন ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী জনাব মোস্তফা জব্বার।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published.